প্রশ্ন সমূহ
আর্টিকেল
মায়া শপ

মায়া প্রশ্নের বিস্তারিত


প্রিয় গ্রাহক, আপনার প্রশ্নের জন্য ধন্যবাদ। আপনার বয়স কত ? কতদিন ধরে আপনার এই সমস্যা হচ্ছে ?         আপনার মাথায় কি খুসকি আছে ? কোন গোটাঁ উঠেছে ? আপনার কি এলার্জির সমস্যা আছে ?আপনার শরীরের অন্য আর কোথাও এমন চুলকানি আছে ? আমাদের জানান। বিভিন্ন কারনে আপনার  মাথায় এমন চুলকানি হতে পারে । তারমধ্যে অন্যতম প্রধান কারন উকুন এবং খুসকি। এছাড়াও উদ্বেগ, ব্যাকটেরিয়ার সংক্রমণ এমনকি দাদ এর জন্য ও হতে পারে মাথার তালুর চুলকানি। এই বিরক্তিকর সমস্যাটি থেকে মুক্তির জন্য আপনাকে এর কারন খুঁজে বের করতে হবে। কারণ জানলে আপনি এর প্রতিকারের ব্যবস্থা নিতে পারবেন, যার জন্য অনবরত মাথা চুলকাতে হয়। মাথা চুলকানির কিছু কারন  ঃ ১। উকুনের সমস্যা মাথা চুলকালে আমাদের প্রথমেই মনে আসে উকুনের কথা। এই পরজীবীটি মাথার তালুতে বাস করে এবং খুব দ্রুত বৃদ্ধি পায়। এটি চূড়ান্ত পর্যায়ের চুলকানি সৃষ্টি করে এবং একজনের মাথা থেকে অন্যজনের মাথায় ছড়িয়ে পড়ে। ঘরোয়া প্রতিকারের মাধ্যমে ও উকুন নাশক শ্যাম্পু ব্যবহার করে আপনি উকুনের ঝামেলা থেকে মুক্ত হতে পারেন। চুলের স্বাস্থ্য রক্ষার জন্যও এদের প্রতিরোধ করা প্রয়োজন। ২। খুশকি মাথার তালুর চুলকানির আরেকটি প্রধান কারণ হচ্ছে খুশকি। এই চুলকানি এত বেশি মাত্রায় হয় যে আপনার মনে হতে পারে যে, আপনি মাথায় উকুনের চাষ করেছেন। দূষণ ও অপরিচ্ছন্ন চুলের জন্য খুশকি হতে পারে। মাথার তালুতে ময়লা জমে গেলে বা আঁশ হলেও খুশকির সমস্যা হয়। মাথার তালুতে অতিরিক্ত সিবাম নিঃসৃত হওয়ার কারণেও চুলকানি বৃদ্ধি পেতে পারে। খুশকি থাকা মাথায় মাথার তালু অনেক বেশি শুষ্ক বা তেল চিটচিটে হয়ে গেলেও চুলকানি বাড়তে পারে। প্রাকৃতিক উপাদান ব্যবহার করে খুশকি থেকে মুক্তি লাভ করা যায়। ৩। হেয়ার প্রোডাক্ট চুলে বিভিন্ন ধরণের পণ্য পরীক্ষা-নিরীক্ষা করলে চুল শুষ্ক ও ভঙ্গুর হয়ে যায়। এর ফলে মাথার তালুতেও প্রভাব পড়তে পারে। রাসায়নিক সমৃদ্ধ পণ্য ব্যবহারের পর সঠিক ভাবে পরিষ্কার করা না হলে সেটা মাথার তালুতে জমে থাকে ও চুলকানির সৃষ্টি করতে পারে। জেল, হেয়ার ক্রিম ও স্প্রে ব্যপকভাবে ব্যবহার করলেও প্রতিক্রিয়া দেখা দিতে পারে। তাই চুলকানির সমস্যা থেকে মুক্ত থাকার জন্য এই সকল রাসায়নিক পণ্য ব্যবহার বন্ধ করে দিন আজই।   ৪। শুষ্ক তালু আপনার মাথার তালু যদি খুব বেশি শুষ্ক হয় তাহলে চুলকানি সৃষ্টি করতে পারে। মাথার তালুর চুলকানির এটি আরেকটি সাধারণ কারণ। মাথার তালুর ত্বক গ্রন্থি সংকুচিত হয়ে যায় এবং আঁশযুক্ত হয়ে যায় শুষ্ক ত্বকের কারণে। এর ফলে চুলকানি সৃষ্টি হয়। মাথার তালুর শুষ্কতা থেকে মুক্তির জন্য মাথায় তেল মালিশ করুন। ৫। তেল চিটচিটে মাথার তালু শুধু শুষ্ক ত্বকের কারণেই মাথা চুলকায় এমনটা ভাবা ঠিক নয়। মাথায় অতিরিক্ত তেলের কারণেও চুলকানি হতে পারে। কারণ এতে ময়লা ও ধুলাবালি জমার সুযোগ সৃষ্টি হয় বেশি তাই চুলকানিও হয়। মাথার তালুর তেল চিটচিটে ভাব দূর করার জন্য হালকা শ্যাম্পু দিয়ে চুল ধুয়ে ফেলুন। ৬। ইনফেকশন যদি উপরোক্ত কোনটিই আপনার মাথার তালুর চুলকানির জন্য দায়ী না হয় তাহলে আপনি হয়তো মাথার তালুর ত্বকের ইনফেকশনের সমস্যায় ভুগছেন। এই অবস্থায় মাথা চুলকালে তা আরো খারাপ অবস্থার সৃষ্টি করে এবং ছড়িয়ে পরে। তাই একজন ট্রাইকোলজিস্ট বা হেয়ার স্পেশিয়ালিস্টের সাথে যোগাযোগ করে আপনার ইনফেকশনের কারণ একজিমা, সরিয়াসিস বা ডারমাটাইটিস কিনা জেনে নিয়ে চিকিৎসা গ্রহণ করুন। ৭। উদ্বেগ দুশ্চিন্তা ও মানসিক চাপের ফলে ইমিউন সিস্টেম দুর্বল হয়ে পড়ে। মানসিক চাপ ত্বকের সংবেদনশীলতা বৃদ্ধি করে। ফলে মাথার তালু ব্যাকটেরিয়া, ভাইরাস, অণুজীব এমনকি রাসায়নিকের প্রভাবে অধিক প্রভাবিত হয়। এ কারণে মাথার তালুর ত্বক বেশি দুর্বল হয়ে পড়ে এবং চুলকানি সৃষ্টি হয়। এরজন্য কিছু নিয়ম মেনে চলুন : · চুলের স্বাস্থ্যবিধি মেনে চললে চুলকানি দূরে থাকবে ·         নিয়মিত চুল পরিষ্কার রাখুন · ভালোভাবে চুল আঁচড়ান যাতে মাথার তালুর রক্ত সংবহন বৃদ্ধি পায় · চিরুনি ও তোয়ালে অন্যের সাথে শেয়ার করা বাদ দিন · স্টাইলিং প্রোডাক্ট ব্যবহার বাদ দিন · চুলের যত্নে প্রাকৃতিক উপাদান ব্যবহার করুন · দুশ্চিন্তা মুক্ত থাকুন। এরপরও সমস্যা থাকলে একজন স্কিনের ডাক্তারের সাথে পরামর্শ করুন । আশা করি আপনাকে সাহায্য করতে পেরেছি। আর কোন প্রশ্ন থাকলে, মায়া আপাকে জানাবেন, রয়েছে পাশে সবসময়, মায়া আপা ।


পরিচয় গোপন রেখে ফ্রিতে শারীরিক, মানসিক এবং লাইফস্টাইল বিষয়ক যেকোনো প্রশ্ন করতে পারেন Maya অ্যাপ থেকে। অ্যাপের ডাউনলোড লিঙ্কঃ http://bit.ly/38Mq0qn


প্রশ্ন করুন আপনিও