আমার স্ত্রী দুইমাসের প্রেগনেন্ট কিন্তু কয়েকদিন যাবৎ তার তলপেটের নিচে প্রচুর পরিমাণে ব্যথা হচ্ছিলো তাই আজকে তাকে একজন গাইনি ডাক্তারের কাছে নিয়ে গিয়েছিলাম উনি কিছু ওষুধ লিখে দিয়েছেন যার মধ্যে ছিলো ক্যালসিয়াম, আয়রন, গর্ভের বাচ্চা যেনো ঠিক থাকে তার জন্য, বমি বমি ভাব হলে তার জন্যে আর গ্যাস্ট্রিকের ওষুধ দিয়েছেন এবং সাথে কিছু টেস্ট করতে বলেছেন কিন্তু টেস্ট করতে খরচ আসছে ২২০০ টাকা প্রায় টেস্টের মধ্যে উল্লেখযোগ্য হচ্ছে প্রস্রাব পরিক্ষা  ,হিমোগ্লোবিন পরিক্ষা,রক্ত পরিক্ষা +আরও কিছু টেস্ট এখন আমার কথা এতোগুলো টেস্ট কি কারণে দিয়েছে আর ওষুধ গুলাই বা কি কারণে খেতে বলেছে প্রায় একমাস একটু বললে ভালো হয়। আপনাদের যদি আমাকে এই ব্যপারে কোনো প্রশ্ন করার থাকে করতে পারেন আমি উত্তর দেওয়ার চেষ্টা করবো কিন্তু দয়া করে বলে দিবেন কোথায় আমি আপনাদের প্রশ্নের উত্তর দিলে বা আপনাদের রোগীর ব্যপারে তথ্য দিলে আমি আপনাদের রেসপন্স পাবো জানিয়ে দিবেন প্লিজ। ধন্যবাদ।

প্রিয় গ্রাহক আপনার প্রশ্নের জন্য ধন্যবাদ। গর্ভ ধারনের ফলে মা এর শরীরে বেশ কিছু পরিবর্তন হয়। গর্ভের বাচ্চার বেড়ে ওঠার কারনে তার বাড়তি চাহিদার প্রয়োজন হয়। আয়রন, ক্যালসিয়াম ইত্যাদি ওষূধ গুলো দেয়া হয় সেই বাড়তি চাহিদা পূরন সহ বাচ্চার এবং মা এর শারীরিক সুস্থতার জন্য। টেস্টগুলো করতে দেয়া হয় মা এর শারীরিক সুস্থতা দেখার জন্য যাতে মা সহজেই একজন সুস্থ বাচ্চা জন্ম দিতে পারে। ডাক্তারের পরামর্শ মেনে চলুন,স্ত্রীকে সাহায্য করুন। ধন্যবাদ

আপনার কোনো প্রশ্ন আছে?

মায়া অ্যাপ থেকে পরিচয় গোপন রেখে নিঃসংকোচে শারীরিক, মানসিক এবং জীবনধারা বিষয়ক যেকোনো প্রশ্ন করুন, বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিন।


মায়া অ্যাপ ডাউনলোড করুন

প্রশ্ন করুন আপনিও