প্রিয় গ্রাহক, আপনার প্রশ্নের জন্য ধন্যবাদ। বিভিন্ন কারণে এটা হতে পারে। যেমন যদি বাচ্চার জিনগত ত্রুটি থাকে, অথবা যদি কোন ধরনের ইনফেকশন হয় ইত্যাদি।আপনি দুশ্চিন্তা করবেন না 6 মাস পরে আবার চেষ্টা করতে পারবেন। আশা করি আপনাকে সাহায্য করতে পেরেছি। আর কোন প্রশ্ন থাকলে, মায়া আপাকে জানাবেন, রয়েছে পাশে সবসময়, মায়া আপা ।

আপনার কোনো প্রশ্ন আছে?

মায়া অ্যাপ থেকে পরিচয় গোপন রেখে নিঃসংকোচে শারীরিক, মানসিক এবং জীবনধারা বিষয়ক যেকোনো প্রশ্ন করুন, বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিন।


মায়া অ্যাপ ডাউনলোড করুন

প্রশ্ন করুন আপনিও