প্রিয় গ্রাহক, আপনার সুন্দর ও সচেতন মূলক প্রশ্নের জন্য ধন্যবাদ। আপনি যে আপনার সমস্যা সম্পর্কে সচেতন তা জেনে ভালো লাগলো। প্রিয় গ্রাহক প্রেগন্যান্সির সময় মায়েদের শরীরের বেশ শারীরিক ও মানসিক পরিবর্তন হয়। এসময় হরমোন লেভেলের বেশ পরিবর্তন হয়।যার দরুন মানসিক ভাবেও কিছুটা পরিবর্তন আসে। মুড সুইং হওয়া, বিষন্নতা,অল্পতে মেজাজ খারাপ হওয়া,রিয়্যাক্ট করা,ইমোশনাল হওয়া,দুশ্চিন্তা এগুলো খুবই কমন গর্ভকালীন সময়ে। এসময়ে আপনি হয়তো আপনার স্বামী বা আশেপাশের মানুষের সাথে খারাপ ব্যবহার করতেই পারেন।এটা নিয়ে মোটেও মন খারাপ ও আফসোস করবেন না।এটা খুবই স্বাভাবিক।বরং আপনার এসব পরিবর্তনের ব্যাপারে হাজবেন্ড কে সচেতন করবেন, বুঝিয়ে বলবেন।দেখবেন সে ঠিকই বুঝবে। সবসময় মন ভালো রাখার চেষ্টা করবেন, এসব বিষয় নিয়ে মাথা ঘামাবেন না।মনে রাখবেন আপনি সুস্থ থাকলে আপনার বাচ্চা ও সুস্থ থাকবে। আপনার জন্য শুভকামনা রইল। আশা করি আপনাকে সাহায্য করতে পেরেছি। আর কোন প্রশ্ন থাকলে, মায়া আপাকে জানাবেন, রয়েছে পাশে সবসময়, মায়া আপা ।

আপনার কোনো প্রশ্ন আছে?

মায়া অ্যাপ থেকে পরিচয় গোপন রেখে নিঃসংকোচে শারীরিক, মানসিক এবং জীবনধারা বিষয়ক যেকোনো প্রশ্ন করুন, বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিন।


মায়া অ্যাপ ডাউনলোড করুন

প্রশ্ন করুন আপনিও