প্রিয় গ্রাহক, আপনার প্রশ্নের জন্য ধন্যবাদ। গ্রাহক আমি অনুভব করতে পারছি আপনার মনের অবস্থা। আসলে কোন বৈবাহিক সম্পর্কেই এধরণের আচরণ বা ব্যবহার গ্রহণযোগ্য নয়। বিয়ের মাধ্যমে কিন্তু আপনি ও সেই পরিবারেই একজন সদস্য। সেক্ষেত্রে পরিবারের অন্য কারো সাথে যদি এমনটা হতো তাহলে কি সেটা সবাই মেনে নিতো? সে যেন আপনার জায়গায় বসিয়ে পরিস্থিতে কে বিবেচনা করে।আপনার হাজবেন্ডের আপনার প্রতি যেমন দায়িত্ব ও ভালোবাসার জায়গা রয়েছে তেমনি তার পরিবারের প্রতিও। এক্ষেত্রে একপক্ষের মনে হতেই পারে সে অন্যজনের প্রতি দূর্বল,অপরপক্ষ নেগেটিভ। তাই হয়তো নানা মনোমালিন্য ও অশান্তির তৈরি হয়। গ্রাহক,আপনি আপনার হাজবেন্ডের সাথে একটু সময় নিয়ে কথা বলুন। তার আপনাকে নিয়ে কি কি অভিযোগ বা সমস্যা তা শুনন,তার পরিবার,মা বা সে কি চায় বা তার দৃষ্টিতে সমাধান কি তা জানুন ।একই ভাবে পরিবারের ও। তারপর উভয়কেই আপনি উভয়ের চাওয়া পাওয়া ও অভিযোগের জায়গাগুলো নিয়ে ক্লিয়ারফাই করুন, তাদের কে বোঝাতে পারেন। আপনারা উভয়ই তার কাছের মানুষ, তার অতি প্রিয়। আপনি কখনোই চাইবেন না একজনকে কষ্ট দিয়ে অপরজনকে খুশি করতে। তাই তারা যেন অনন্ত আপনার অবস্থানটাও বোঝে।তাদের এরুপ ব্যবহার ও আচরণে করলে আপনার ও খারাপ লাগে, কষ্ট হয়।আপনার হাজবেন্ড নিশ্চয়ই এটা চায় না। আশা করি সুন্দর করে আলোচনা করলে সমস্যার জায়গাটা অনেকটাই কমে আসবে। প্রয়োজনে কাছের কোন মানুষ বা আত্নীয়র সাহায্য নিতে পারেন। আশা করি আপনাকে সাহায্য করতে পেরেছি। আর কোন প্রশ্ন থাকলে, মায়া আপাকে জানাবেন, রয়েছে পাশে সবসময়, মায়া আপা।

আপনার কোনো প্রশ্ন আছে?

মায়া অ্যাপ থেকে পরিচয় গোপন রেখে নিঃসংকোচে শারীরিক, মানসিক এবং জীবনধারা বিষয়ক যেকোনো প্রশ্ন করুন, বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিন।


মায়া অ্যাপ ডাউনলোড করুন

প্রশ্ন করুন আপনিও