প্রিয় গ্রাহক, আপনার প্রশ্নের জন্য ধন্যবাদ। ছারপোকা, রক্তচোষা এই পতঙ্গটি সত্যিই খুব বিরক্তিকর। এরা সাধারণত ম্যাট্রেস, কুশন, বালিশের কভার, সোভা, ট্রাভেলিং ব্যাগ, কম্বলে থাকে। তাছাড়াও আপনার ভ্রমণকে নিরানন্দ করতেই বুঝি এরা ট্রেন, বাস ইত্যাদির সিটেও থাকে।এরা রাতের বেলায় বেশি সক্রিয় থাকে। তাই বলে যে দিনের বেলায় কামড়াবে না এমন না। সহজেই ছারপোকা তাড়ানোর উপায় -... # ধোয়া: আপনার বাসায় ছারপোকা দেখা গেলে সবচেয়ে ভাল উপায় হবে কুশন, বিছানাপত্র, ম্যাট্রেস ইত্যাদি গরম পানি দিয়ে ধোয়া বা সিদ্ধ করা। এর ফলে ছারপোকা ও ডিম উভয়েই দূর হবে। ধোয়া কাপড় গুলো প্লাস্টিকের ব্যাগের ভিতর রাখতে হবে। # তাপের ব্যবহার: ছারপোকা সাধারণত ১১৩ ডিগ্রী ফারেনহাইট তাপমাত্রাতে মারা যায়। এরা অত্যধিক সূর্যের তাপ সহ্য করতে পারে না। তাই সূর্যের তাপে সহজেই ছারপোকা মারতে পারেন। মাঝেমাঝেই আপনার বিছানাপত্র, ম্যাট্রেস ইত্যাদি রোদে দিবেন। # কীটনাশকের ব্যবহার: এটিও ছারপোকা তাড়ানোর একটি ভাল উপায়। বিছানাপত্রের উপর হালকা করে কীটনাশক স্প্রে করতে পারেন। ভাল ফলাফল পেতে স্প্রে করার পর কয়েক ঘন্টা পর্যন্ত রোদে রাখতে হবে। # ট্যালকম পাউডারের ব্যবহার: শিশুদের ব্যবহার্য ট্যালকম পাউডার ছারপোকা আছে এমন আসবাবপত্রে ছিটিয়ে দিন। এতে ছারপোকার শ্বাসরোধ হয়ে মারা যাবে। ট্যালকম পাউডারের পাশাপাশি আসবাবপত্র গুলোও কয়েক ঘন্টার জন্য রোদে রাখুন ছারপোকা আপনার বাসা ছাড়বেই। # অ্যালকোহলের ব্যবহার: ছারপোকা প্রবণ স্থানে অ্যালকোহল ছড়িয়ে দিলেও ছারপোকা মারা যাবে। # রুম পরিষ্কার রাখা: কলেজ বিশ্ববিদ্যালয়ের হল বা মেসে থাকলে প্রথমেই আপনার রুমটি পরিষ্কার করবেন। বিশেষত আপনার বিছানার নিচে থাকা পুরাতন কাগজ, বইপত্র ইত্যাদি ছারপোকার বসবাস ও ডিম পাড়ার জন্য খুবই প্রিয় স্থান। তাই সেগুলোকে সরিয়ে রাখুন। অন্যান্য লক্ষণীয় বিষয়: আপনার বিছানাটি দেয়াল থেকে দূরে রাখবেন, যে কোন ফাঁটল প্লাস্টিক টেপ দ্বারা বন্ধ করে দিন। তাছাড়াও বিছানায় প্লাস্টিক সিট বিছিয়ে দিতে পারেন। যদি আপনার বিছানা কিংবা বাসা বাড়িতে ছারপোকা থাকে তবে আমি নিশ্চিত আপনি শান্তিতে ঘুমাতে পারছেন না। তাই উপরের নিয়মগুলো মেনে আপনি ছারপোকা দূর করতে পারেন। আশা করি আপনাকে সাহায্য করতে পেরেছি। আর কোন প্রশ্ন থাকলে, মায়া আপাকে জানাবেন, রয়েছে পাশে সবসময়, মায়া আপা ।

আপনার কোনো প্রশ্ন আছে?

মায়া অ্যাপ থেকে পরিচয় গোপন রেখে নিঃসংকোচে শারীরিক, মানসিক এবং জীবনধারা বিষয়ক যেকোনো প্রশ্ন করুন, বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিন।


মায়া অ্যাপ ডাউনলোড করুন

প্রশ্ন করুন আপনিও