প্রিয় গ্রাহক,আপনার প্রশ্নের জন্য ধন্যবাদ।ঠান্ডা বা গরম সেক :-ব্যাথা নিরাময়ে সহায়ক।অ্যাকিউট কোমর ব্যাথায় ঠান্ডা এবং ক্রনিক কোমর ব্যাথায় গরম সেক বেশী সহায়ক।বরফের প্যাক, গরম প্যাক, ইলেকট্রিক প্যাড, পানির বোতল সব কিছুই ব্যবহার কার যেতে পারে । করসেট:-কোমরের সাপোর্ট হিসেবে করসেট ব্যব হার করা হয়ে থাকে।বেশিদিন ব্যব হার করা উচিত নয়।করসেট এর সাথে ব্যায়াম করা জরুরি। ব্যাকপেইন আমাদের খুব সাধারণ সমস্যা হয়ে দাঁড়িয়েছে। আর যখনই আপনি এ সমস্যায় পড়বেন নিজের সব কাজকর্ম বাদ দিয়ে বসে থাকবেন না। সচল থাকুন, দেখবেন ব্যথা আর বাড়তে পারবে না। আর বাড়িতে একটু চেষ্টা করলেই কমাতে পারেন এই অসহ্য ব্যথা। জেনে নিন কীভাবে করবেন এই কাজগুলো। # অফিসে অনেকক্ষণ টানা বসে থাকবেন না। মাঝে মাঝে উঠুন, একটু হাঁটাচলা করুন। আর গদি চেয়ার পরিহার করে চেষ্টা করুন কাঠের অথবা প্লাস্টিকের চেয়ার ব্যবহার করতে। # ভারী জিনিস বেশিক্ষণ টানাটানি করলে ব্যাকপেইন হতে পারে। খুব বেশি সময় এই কাজ করবেন না। মাঝে মাঝে বিশ্রাম নিন। # আর ব্যাকপেইনের সমস্যা নিয়মিত দেখা দিলে আপনার ডাক্তারের সাথে যোগাযোগ করুন। # ব্যাকপেইন কমানোর জন্য ফিটনেস এক্সপার্টের সাথে যোগাযোগ করতে পারেন স্ট্রেচিং এক্সারসাইজ করার জন্য।আশা করি আপনাকে সাহায্য করতে পেরেছি।আর কোন প্রশ্ন থাকলে, মায়া আপাকে জানাবেন,রয়েছে পাশে সবসময়,মায়া আপা ।

আপনার কোনো প্রশ্ন আছে?

মায়া অ্যাপ থেকে পরিচয় গোপন রেখে নিঃসংকোচে শারীরিক, মানসিক এবং জীবনধারা বিষয়ক যেকোনো প্রশ্ন করুন, বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিন।


মায়া অ্যাপ ডাউনলোড করুন

প্রশ্ন করুন আপনিও