মায়া প্রশ্নের বিস্তারিত


Avatar

প্রিয় গ্রাহক, আপনার প্রশ্নের জন্য ধন্যবাদ। আপনার বয়স কত?ডায়েবেটিস আছে কি?জানাবেন। আপনার পানি সেবনের পরিমান বেশি হয়ে যাচ্ছে।একজন প্রাপ্তবয়স্ক মানুষের দৈনিক ৩ লিটার পানি পান ই জথেষ্ট।এর থেকে বেশি পানি গ্রহণ করলে আপনার শরীরের মোট রক্তের ভলিউম বেড়ে যেতে পারে। আর রক্তের ভলিউম বেড়ে গেলে পুরো শরীরেই এর প্রভাব পরবে। বিশেষ করে হার্ট ও ব্লাড ভেসেল এর উপর অতিরিক্ত চাপ সৃষ্টি করবে রক্তের এই বাড়তি ভলিউম। ২) আমাদের কিডনি প্রতিদিন একটি ধরাবাধা নিয়মে পানি ফিল্টার করে। অতিরিক্ত পানি খেলে কিডনির উপর অতিরিক্ত চাপ সৃষ্টি হয়। অতিরিক্ত চাপের ফলে শরীরের ফিল্টারেশন সিস্টেমে ব্যাঘাত ঘটে। ফলে দুটি কিডনিই কিছুক্ষণের মধ্যেই বিকল হয়ে যেতে পারে যা স্বাস্থ্যের জন্য অত্যন্ত ঝুকিপূর্ণ। ৩) খুব কম সময়ের মধ্যে অতিরিক্ত পানি পান করে ফেললে রক্তের ইলেক্ট্রোলাইটের মাত্রা হঠাৎ করে অতিরিক্ত নেমে যায়। কিন্তু কোষের ইলেক্ট্রোলাইটের মাত্রা ঠিক থাকে। ফলে রক্ত ও কোষের ইলেক্ট্রোলাইটের মাঝে ভারসাম্য রাখার জন্য রক্তের কিছু পানি কোষে ঢুকে যায় এবং শরীর হঠাৎ করেই ফুলে যাওয়ার সম্ভাবনা বেড়ে যায়। এই প্রভাব মস্তিষ্কের উপরের পড়ে এবং ফলাফল স্বরূপ মাথা ব্যাথা ও শ্বাসপ্রশ্বাসের সমস্যা দেখা দেয়।তাই প্রাপ্তবয়স্ক মানুষের দৈনিক ৩ লিটার পানি পান ই জথেষ্ট।আপনি সকালে খালি পেটে ২৫০ মিলি ও প্রতি ২ ঘন্টা পর পর বা প্রয়োজন মত ১ গ্লাস করে পানি পান করুন।খাবার এর আগে ১ গ্লাস ও খাবার এর কিছু পরে ১৫-২০ মিনিট পরে ১ গ্লাস পানি পান করতে পারেন।আভাবে দিনে ১০ থেকে ১২ গ্লাস পানি খান।রাতে ৮ টার পর তুলনামূলক কম পানি পান করুন। আশা করি আপনাকে সাহায্য করতে পেরেছি। আর কোন প্রশ্ন থাকলে, মায়া আপাকে জানাবেন, রয়েছে পাশে সবসময়, মায়া আপা ।

উত্তর করেছেন : Dr. S Roy

  প্রশ্ন করা হয়েছে 1 week ago

সম্পর্কিত প্রস্নসমুহ

Internet Org


Voice question....
আরও দেখুন

Internet Org


গরম পানির সাথে মধু ও লেবু খাওয়ার উপকারবতা কি??? লেবু মধু ও হালকা গরম পানি খেলে কি হয়?....
আরও দেখুন

দ্রুত উত্তর - On Google Play