গ্রাহক,  আপনার সম্পর্কে কিছু জানতে পারি? আপনি ছেলে না মেয়ে ? আপনার বয়স কত? আপনি এই বিষয়ে কি নিজের জন্য জানতে চাচ্ছেন? নাকি আপনার পরিচিত কারো জন্য? এইডস একটি সংক্রামক রোগ যা এইচআইভি (Human Immunodeficiency Virus) ভাইরাসের সংক্রমণের মাধ্যমে হয়। এটি মানুষের দেহের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতাকে দুর্বল করে দেয়। এইচআইভি সংক্রমণের ফলে অন্যান্য রোগ যেমন-নিউমোনিয়া, মেনিননজাইটিস এমনকি ক্যান্সারও হতে পারে। এইচআইভি সংক্রমণের পরের ধাপকেই এইডস (Acquired Immunodeficiency Syndrome) বলা হয়।সংক্রমণের ধাপের উপর নির্ভর করে এইচআইভি ও এইডসের লক্ষণ ও উপসর্গগুলো পৃথক হয়ে থাকে।এইডস এর লক্ষণ ও উপসর্গ :-#  সংক্রমণের প্রাথমিক পর্যায়ে সাধারণত: -জ্বর-মাথা ব্যথা-গলা ভাঙ্গা-লসিকাগ্রন্থি ফুলে উঠা (Swollen lymph glands)-শরীরে লালচে দানা (Rash) ইত্যাদি লক্ষণ ও উপসর্গ দেখা দেয়।# সংক্রমণের পরবর্তী সময় সাধারণত: -অস্থিসন্ধি ফুলে উঠা (Swollen lymph nodes)-ডায়রিয়া-শরীরের ওজন কমা-জ্বর-কাশি এবং শ্বাসকষ্ট ইত্যাদি লক্ষণ ও উপসর্গ দেখা দেয়। সংক্রমণের শেষ পর্যায়ে সাধারণত: -রাতের বেলা খুব ঘাম হওয়া-কয়েক সপ্তাহ ধরে ১০০ ফারেনহাইট (৩৮ সে.) বা এর অধিক তাপমাত্রার জ্বর অথবা কাঁপুনি-শুকনা কাশি এবং শ্বাস কষ্ট-দীর্ঘদিন ধরে ডায়রিয়া-মুখ অথবা জিহ্বা বেঁকে যাওয়া অথবা সাদা দাগ পড়া-মাথা ব্যথা-সবকিছু অস্পষ্ট ও বিকৃত দেখা-তীব্র অবসাদ অনুভব-তিন মাসের অধিক সময় ধরে অস্থিসন্ধি ফুলে থাকা ইত্যাদি লক্ষণ ও উপসর্গ দেখা দেয়। #  শিশুদের ক্ষেত্রে এইচআইভি’র লক্ষণ :--ওজন বৃদ্ধি না পাওয়া-স্বাভাবিক বৃদ্ধি না হওয়া-হাঁটতে সমস্যা-মানসিক বৃদ্ধি দেরীতে হওয়া-কানের সংক্রমণ, নিউমোনিয়া এবং টনসিলের মতো সাধারণ স্বাস্থ্য সমস্যার প্রকট আকার ধারণ করা।

আপনার কোনো প্রশ্ন আছে?

মায়া অ্যাপ থেকে পরিচয় গোপন রেখে নিঃসংকোচে শারীরিক, মানসিক এবং জীবনধারা বিষয়ক যেকোনো প্রশ্ন করুন, বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিন।


মায়া অ্যাপ ডাউনলোড করুন

প্রশ্ন করুন আপনিও